রোমান্টিক

Items Showing 1 to 24 from 47 books results

পাখি আমার একলা পাখি

আনিসুল হক
  • ৳৭০

স্ত্রী রুপার প্রতি মুগ্ধ রঞ্জু। বাবার চোখে ক্রমশঃ ব্যক্তিত্বহীন হয়ে পড়ছে সে। মা একদিন বললেন, 'তুই খারাপ ধরনের ছেলে'। রঞ্জুর চোখে তার মা একজন খারাপ ধরনের মা, স্ত্রী হিসেবে ব্যর্থ, শিক্ষিকা হিসেবেও ব্যর্থ। বোন মুনিয়ার সঙ্গে রঞ্জুর বনিবনা আপাতদৃষ্টিতে 'ভালো'। এদিকে রুপাকে নিয়েও অসন্তোষ আছে রঞ্জুর মা-বাবার মনে, বিশেষ করে মুখের ওপর ফটফট করে কথা বলা রুপাকে অসহ্য লাগে তাদের কাছে! অন্যদিকে রঞ্জুকে দেখা যায় একটি খুনের পরিকল্পনা করছে। কে খুন হতে যাচ্ছে রঞ্জুর হাতে? হুমায়ূন আহমেদের চমক ও রহস্যের সঙ্গে পরিচিত পাঠকগণ এই গল্পেও পাবেন তুঙ্গস্পর্শী এক পাঠ-অনুভূতি।

ল্যান্ডফোন

আনিসুল হক
  • ৳৬০

ল্যান্ডফোনে মন বিনিময়! এটি এখন ঠিক ভাবা যায় না। কিন্তু মুঠোর মধ্যে থাকা ফোন, সেই ফোনের মধ্যে থাকা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অহরহ ঘটছে বন্ধুত্ব, প্রেমের মতো গুরুত্বপূর্ণ সব সম্পর্ক।এই আধুনিক সময়ে ল্যান্ডফোন আগের মতো অপরিহার্য কোনো যোগাযোগ মাধ্যম নয়। তবুও মোবাইল ফোনের ভিড়ে এখনো কিছু ভালোবাসার গল্প গড়ে ওঠে এই ল্যান্ডফোনে। আবার কখনো কোথাও এই ল্যান্ডফোনই হয় কোনো গল্পরই অন্যতম চরিত্র। এমনই এক গল্প নিয়ে জনপ্রিয় সাহিত্যিক ইশতিয়াক আহমেদ-এর উপন্যাস ‘ল্যান্ডফোন’। শাহেদ, বৃষ্টি বা হাসানের গল্পটি সংসারের, আবার না হওয়া সংসারেরও; যেখানে ঘর-বাহির একাকার হয়ে গেলেও কেউ আসলে নেই কোথাও!

যেন ভুলে না যাই

আনিসুল হক
  • ৳৬৫

‘যেন ভুলে না যাই’- উপন্যাসটির প্রধান চরিত্র মূলত সময়। প্রজন্মের ব্যবধান আমাদের ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটকে কতনা নতুন রূপে আর্বিভূত করে আমাদের সামনে। আমাদের চিন্তা, চেতনায়, ভারসাম্যে আমরাও তাকে মাপি নতুন নতুন তত্ত্ব দ্বারা প্রভাবিত হয়ে। রচিত হয় মিথ্যা প্রেক্ষাপট। তবে উপন্যাসটি সত্য উন্মোচন করে ভিন্ন এক অনুভূতির প্রেক্ষাপটকে সামনে এনে। বীরাঙ্গনা এক নারী ও তার সন্তানকে নিয়ে গল্প এগিয়েছে নদীর মতো। মুহুর্ত তৈরি হয়েছে অঘোষিতভাবে, জীবনের সাদা-কালো-ধূসর প্রান্তরে। এক ঘোরলাগা অনুভূতির ভেতর দিয়ে পাঠক হেঁটে যাবে ভিন্ন জগতে, তার মনের গভীরের কোনো এক অতলে, যেখানে অনুভূতি আর আবেগ মিলেমিশে সৃষ্টি করে চলেছে নতুন এক উপলব্ধির।

বেজক্যাম্প হোটেলের মধ্যরাত

আনিসুল হক
  • ৳৪০

আমি আর এলিটা দাঁড়িয়ে আছি ব্যালকনিতে। জমে যাওয়া ঠাণ্ডায় ঘুমিয়ে গেছে পুরো পারো। নিস্তব্ধ পৃথিবী। এলিটার নিঃশ্বাসের শব্দ স্পষ্ট। শব্দের সাথে অনুমান করা যায় তার নাকের কাছটা তিরতির করে কেঁপে উঠছে। শরীরে পুলওভার চাপিয়েছি। কে জানতো ফের এই বেজক্যাম্পেই এসে ঠেকবো, কে জানতো আবার আমাদের দু’জনকে প্রকৃতি এই বারান্দায় এনে ফেলবে, ঠিক এমনই নিশিরাতে। ঠিক যেন সেই রাত ফিরে এসেছে, যেখান থেকে ভালো মন্দের শুরু। যেখান থেকে টর্নেডো শুরু হয়ে পরিণত হলো শান্ত সমুদ্রে। আজকের সাথে সেদিনের পার্থক্য এক জায়গায়। সে রাতে চাঁদ ছিল না। আজকের ঘুমন্ত পারোর আকাশে এক থালা নিঃসঙ্গ চাঁদ রয়েছে। পারোর শীত, কুয়াশার চাদর জোছনাকে মলিন করতে পারেনি বটে। ফিনকি দিয়ে ঝরছে চাঁদের আলো। এলিটার মুখ যেন গ্রামের মেলা থেকে কেনা এক টুকরো ঝকঝকে আয়না, আলো প্রতিফলিত হয়ে চাঁদকেই ফিরিয়ে দিচ্ছে।

হিমুর রূপালী রাত্রি

আনিসুল হক
  • ৳৬০

হিমু ও তামান্নার বিয়ের কার্ড দেখতে সুন্দর হলেও রূপা হাসলো। এমনিতে সে খুব কম হাসে। ছোটবেলায় কেউ বোধহয় তাকে বলেছিলো কম হাসতে। তাকে বিষণ্ণ অবস্থায় দেখতে ভালো লাগে। ব্যাপারটা তার মাথায় ঢুকে গেছে, সে জন্যেই সারাক্ষণ বিষণ্ণ থাকে। এই নিয়ে সে হাসলো চারবার, পঞ্চমবার হাসলেই ম্যাজিক নাম্বার পূর্ণ হবে। ‘হাসছ কেন রূপা?’ -তুমি বদলে যাচ্ছ এই জন্যে হাসছি। মানুষকে আগে তুমি ধোঁকা দিতেনা, এখন দিচ্ছ। ‘কাকে ধোঁকা দিচ্ছি?’ -তামান্না নামের মেয়েটাকে দিচ্ছ। বিয়ের রাতে সবাই উপস্থিত হবে শুধু তুমি হবে না। তুমি জ্যোৎস্না দেখতে জংগলে চলে যাবে। মেয়েটার কি হবে ভেবেছ কখনো?

বিমূর্ত যাতনা

আনিসুল হক
  • ৳৬০

জন্মান্ধ চোখে আমরা শুধু মানুষের জন্ম পরিচয়ের মাধ্যমে তার ভালো মন্দের হিসাব কষি। চিহ্নিত করি অনির্ধারিত অনির্বাচিত পরিচয়ের ছাঁচে। আমাদের স্বেচ্ছা নিস্পৃহতার সুযোগে প্রতিনিয়ত এই তালিকা দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতর হচ্ছে। বিমূর্ত যাতনা উপন্যাসটি এমন প্রেক্ষাপটকে নিয়েই রচিত। সামাজিক আইনকানুন, ধর্মীয় পরিচয়, দেশীয় ঐতিহ্য আর মুক্তিযুদ্ধকে কেন্দ্র করে গল্প কখনও চলে গিয়েছে অনেকদূরের পথে আবার তা পরক্ষণেই ফিরে এসেছে পুরানো স্মৃতির শহরে নতুন পথের সন্ধান নিয়ে। মুহুর্তকে মানবিক চিন্তার সুতোয় আবদ্ধ করে এক অনন্য মালা গাঁথতে চেয়েছেন লেখিকা। তিনি কতটা স্বার্থক হয়েছেন তা তার পাঠকই বলতে পারবেন।

Items Showing 1 to 24 from 47 books results

Boighor

Stay Connected