Nitaicharaner Jiban

নিতাইচরণের জীবন

Product Summery

আকাশে চাঁদ নেই। ঘুরঘুট্টি অন্ধকার চারদিক। দু’ হাত দূরে চোখ চলে না। বাজারের ঘরদোরগুলো অন্ধকারে ঠাওর করা যায় না। সব অন্ধকারে তলানো। মধ্যরাতে চরাচরে থাকে এক ধরনের হাওয়া। গাছপালায় পাখির ডানার মতো শা শা শব্দ তুলে বয়ে যায়। হাঁটতে হাঁটতে সেই হাওয়াটা টের পায় নিতাই, একটু একটু শীত করে তার। বুকের ভেতরকার উত্তেজনাটা বিশাল। এতক্ষণ, সেই সন্ধ্যে থেকে থম ধরে ছিল। এখন আস্তে ধীরে ছড়িয়ে যাচ্ছে রক্তে। গা গরম হয়ে উঠছে নিতাইয়ের। হাঁটতে হাঁটতে টের পায়, যেন বা জ্বর এসে গেছে। হাতে তিন ব্যাটারির টর্চ। পুরনো ব্যাটারি, জোর কমে গেছে, কাক জ্যোৎস্নার মতন আলো হয়। সেই আলোর ফোকাস ফেলে ফেলে এগোয় নিতাই।

আরও পড়ুন >

Tab Article

আকাশে চাঁদ নেই। ঘুরঘুট্টি অন্ধকার চারদিক। দু’ হাত দূরে চোখ চলে না। বাজারের ঘরদোরগুলো অন্ধকারে ঠাওর করা যায় না। সব অন্ধকারে তলানো। মধ্যরাতে চরাচরে থাকে এক ধরনের হাওয়া। গাছপালায় পাখির ডানার মতো শা শা শব্দ তুলে বয়ে যায়। হাঁটতে হাঁটতে সেই হাওয়াটা টের পায় নিতাই, একটু একটু শীত করে তার। বুকের ভেতরকার উত্তেজনাটা বিশাল। এতক্ষণ, সেই সন্ধ্যে থেকে থম ধরে ছিল। এখন আস্তে ধীরে ছড়িয়ে যাচ্ছে রক্তে। গা গরম হয়ে উঠছে নিতাইয়ের। হাঁটতে হাঁটতে টের পায়, যেন বা জ্বর এসে গেছে। হাতে তিন ব্যাটারির টর্চ। পুরনো ব্যাটারি, জোর কমে গেছে, কাক জ্যোৎস্নার মতন আলো হয়। সেই আলোর ফোকাস ফেলে ফেলে এগোয় নিতাই।

Tab Article

ইমদাদুল হক মিলন বাংলা ভাষার জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক। গল্প, উপন্যাস ও নাটক এই তিন শাখাতেই তিনি সিদ্ধহস্ত। ‘কিশোর বাংলা পত্রিকা’য় একটি শিশুতোষ গল্প লিখে তিনি সাহিত্যজগতে আত্মপ্রকাশ করেন। এপার-ওপার দুই বাংলায়ই তিনি তুমুল জনপ্রিয়। তাঁর আলোড়ন সৃষ্টিকারী উপন্যাসের মধ্যে 'নূরজাহান' অন্যতম। এ ছাড়া অধিবাস, পরাধীনতা, কালাকাল, পরবাস, কালোঘোড়া, মাটি ও মানুষের উপাখ্যান, জীবনপুর, লিলিয়ান উপাখ্যান, কবি ও একটি মেয়ে, পর, সাড়ে তিন হাত ভূমি প্রভৃতি তাঁর অন্যতম রচনা। বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে অবদানের জন্য তিনি একুশে পদকে ভূষিত হয়েছেন। ইমদাদুল হক মিলন ১৯৫৫ সালে বিক্রমপুরের মেদিনীমণ্ডল গ্রামে নানার বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পৈতৃক নিবাস মুন্সীগঞ্জের লৌহজং থানার পয়সা গ্রামে।

0 REVIEW for ' নিতাইচরণের জীবন'

No review found

ADD A REVIEW

Your Rating


content title
Loading the player...