আধুনিক

Items Showing 1 to 24 from 32 books results

মাংসের তোরণ

আল মাহমুদ
  • ৳৫০

‘মাংসের তোরণ’ আল মাহমুদের একটি দেহবাদী গল্প। দৈহিক প্রয়োজন মেটাতে গল্পের চরিত্র আনজাম গিয়েছিল রাস্তায়, কোনো পতিতাকে তুলে আনতে। তুলেও এনেছিল তার গাড়ি করে। কিন্তু বাড়ির গাড়িবারান্দায় ঢুকেই দেখতে পায় মা’কে। বাধ্য হয়ে সে মার সঙ্গে মেয়েটিকে বান্ধবি বলে পরিচয় করিয়ে দেয়। হবু পুত্রবধুর বয়সী একটা মেয়েকে দেখে সহজ সরল রশিদা বেগমতো মহা খুশি। নিজ কক্ষে বসিয়ে আলাপ জুড়ে দিলেন মেয়েটির সংগে। রাগে ক্ষোভে আনজাম তার ঘরে গিয়ে মদে ডুবে যায়। মেয়েটি যখন তার ঘরে এসে নগ্ন হয় তখন আনজাম নগ্ননাভিমূলকে বাংলাদেশের মানচিত্র হিসেবে দেখতে লাগল। মেয়েটির নাভিমূল কি মানচিত্রের মতোই? নাকি আনজাম নেশাতুর বলে এমনটা মনে হচ্ছে? আনজাম ভেবে পায় না।

টুলটুলি

ইমদাদুল হক মিলন
  • ফ্রি বই

টুলটুলির কাছে ব্যাপারটার যত সহজ, আমার কাছে ততটা নয়। টুলটুলির সঙ্গে আমার প্রেম বছর খানেকের। এই এক বছরে আমাদের ব্যাপারটা টুলটুলির বাসার সবাই জেনে গেছে। টুলটুলিই ইচ্ছে করে জানিয়েছে। পরে যাতে কোনও রকমের প্রবলেম অ্যারাইজ না করে। কিন্তু আমি কাউকে জানাতে পারিনি। আমার বাবা ভীষণ বদমেজাজী। আমি এমনিতেই একটু ভীতু প্রকৃতির। আর একটা ব্যাপার আছে, ইমিডিয়েট বড় ভাইটির এখনও বিয়ে হয়নি। বছরখানেক হলো ইঞ্জিনিয়ারিং পাস করে বেরিয়েছে। একটা চাকরিও জুটিয়েছে মাস ছয়েক। বাবা বোধহয় ওর বিয়ের কথা ভাবছেন। এসময় আমার এইসব ব্যাপার শুনলে নির্ঘাত গেটআউট করে দেবে।

এ্যাবস্ট্রাক

রাবেয়া খাতুন
  • ফ্রি বই

কবি না হলেও কবিত্ব জেগেছিল সেদিন জামালের মনে। মডার্ন আর্টের জগতে বাস করে, অ্যাবস্ট্রাক্ট ফর্মে ছবি আঁকে যে, রঙ-রূপ নিয়ে যার খেলা, কবি না হলেও কবির কল্পনায় সঙ্গী হতে তো সে পারেই। কিন্তু বাস্তবে সেদিন যাকে দেখে শিল্পের আরাধনায় ব্যাঘাত ঘটল জামালের, সে ছিল মৌলি- জামালের কল্পনার মানসসুন্দরী। কিন্তু মৌলিকে কাছে টানে শুধু জামালের শিল্পকর্ম আর শিল্পীসত্ত্বা। জামালের পৌরুষ আর পুরুষালী ভালোবাসা মৌলির মনে কোন দাগ কাটে না। কারণ, বন্ধুত্ব চায় সে, বন্ধন নয়। যুক্তি আর বস্তু-নির্ভর যে আধুনিকতার যে চর্চা এখন শিল্পে-সাহিত্যে, মানবতাকে সে কি এভাবেই মুক্ত করবে সব বন্ধন থেকে? সব বন্ধন ছিন্ন হলে তাকে মুক্তি বলে, না মৃত্যু?

বিস্ময়

রাবেয়া খাতুন
  • ৳৬০

এক বছরের চাকরীতে দেখেছে রাশেদ, জুটি ধরা খদ্দের যখনই দোকানে আসছে, একজনের মুখে থাকছে অনেক সূর্যের দীপ্তি অপর জন নিষ্প্রভ। অবশ্য এমন পুরুষ ক্রেতাও আসেন যাদের বহু মুদ্রার বিনিময়ে কেনা অলংকারটির জন্য এতটুকু ক্ষেদ থাকে না, থাকে সঙ্গিনীকে তা দেবার মাঝে বিমূর্ত আনন্দ। আবার কেউ আসে কাল কিংবা একহাপ্ত আগে যে আংটিটি কিনে নিয়ে গেছিল অনেক আগ্রহে, আজ তা বিক্রি করতে। কিন্তু বিস্ময় জোগায় এক বিশেষ কাস্টমার। এসেছে বেশ কয়েকবার। তবে অর্ডার দিয়ে কিছু করায় না। এক সেটের বদলে আর এক সেট নিয়ে যায়। যেগুলো দিয়ে যায় তা একেবারে নতুন। বিস্ময় প্রকাশ করে আলিকুলিও। ব্যাপারটা কি?

সিসেমের দ্বিতীয় দরজা

নাসরীন জাহান
  • ৳৮০

স্বপ্ন আর বাস্তবের বিভ্রমে পড়ে খুন হয় সুবর্ণা। অচিনের উদ্দেশে স্টিমারে ওঠে মুনতাসির। ঘোর-লাগা চন্দ্ররাত্রিতে সমুদ্রের ঘাই খেয়ে ঝলসে উঠা ঢেউ দেখতে দেখতে ঘাড়ে পূর্বাশার নিঃশ্বাসের গন্ধ অনুভব করে। অপরূপা পূর্বাশার সঙ্গে নানা কথোপথনের দীর্ঘ যাত্রা চলতে থাকে। সুবর্ণার পিঠাপিঠি পালিত ভাই অপুর প্রতি সুবর্ণার বাড়াবাড়ি প্রগাঢ় মায়া ভালোবাসাকে সবাই সন্দেহের চোখে দেখে। মুনতাসিরের হাতে অস্ত্র ওঠে সেই কারণেই। এইসব দিক চক্রে মুনতাসির যেখানে পৌঁছায় সেখানেও তার দেখা হয় আরেক অথবা একই সুবর্ণার সঙ্গে। সুররিয়ালিস্টিক এই উপন্যাসটি কখনো সত্যের মতো মিথ্যা, কখনো মিথ্যার মতো সত্যে আক্রান্ত।

সারা রাত শিশিরের কান্না

নাসরীন জাহান
  • ৳৪৫

নিজের লেখার ভিত্তি, সেই গল্পের সঙ্গে তার চিরন্তন চালটাকে তাঁকে ভিন্ন এক অনুভূতিতে আচ্ছন্ন রাখে। শুরু থেকেই তাঁর লেখায় জাদুবাস্তবতার মোড়কে দেহ-মনঃপীড়নের দহন অত্যাশ্চর্য ভাষার মধ্যে দিয়ে প্রতিফলিত হয়। আমাদেরই মানুষ বাতাস রোদ জীবনবাস্তবতার নিষ্ঠুর প্রয়োগ ঘটান কখনো এদেশের, কখনো বাইরের দেশের লেখকদের লেখার আবহে উদ্দীপক হয়ে, সুররিয়ালিজমের তরঙ্গের মধ্যে প্রবহমানতার মাধ্যমে। এই গ্রন্থের বেশিরভাগ গল্পই আবর্তিত করুণ শিশিরের মতো ট্রাজেডি দ্বারা। যা স্বাভাবিক নয়, অস্বাভাবিক নিকৃষ্ট যন্ত্রণা রাত্রি আঁধার কুয়াশার মতো প্রচ্ছায়া ছড়িয়ে চরিত্রগুলোকে দংশন করে আঁধারে ঠেলে দিলেও লেখক হতাশ হন নি কোথাও।

ফিরে আসা

রাহাত খান
  • ৳৫৫

আমেরিকা থেকে বারো বছর পর ঢাকা ফিরেছে রুহুল ইসলাম উল্লাস। এইচ.এস.সি পাশের পর বৃত্তি নিয়ে সে আমেরিকায় পড়তে গিয়েছিল। গত ছয় মাস আগে গ্রীন কার্ড পেয়েছে। ছোট বোন কান্তির সাথে গল্প করছিল উল্লাস। হঠাৎ অপরিচিত এক মেয়ের ফোন আসলো। তার নাম নাতাশা। সে উল্লাসের সাথে দেখা করতে চায়। দেখা করে অবাক হয় উল্লাস। নাতাশা অসম্ভব সুন্দরী। কিন্তু এই সৌন্দর্য-ই তার জন্য কাল হয়ে দাঁড়িয়েছে। আলী জুলফিকার ক্ষমতাসীন দলের নেতা। সে নাতাশাকে পছন্দ করে। বিয়ে করতে চায়। নাতাশা ও তাদের বাড়ির প্রতি লোভ তার। সে জন্য নাতাশা উল্লাসের সহযোগিতা নিয়ে আমেরিকা চলে যেতে চায়। জুলফিকারের হাত থেকে নাতাশাকে রক্ষা করার চেষ্টা করে উল্লাস।

নীলস্বপ্ন

নিশো আল মামুন
  • ৳৫৫

পরিষ্কার নীলাকাশ। কড়া রোদ উঠেছে। কিন্তু বাতাস ঠান্ডা। রঞ্জু রাস্তা দিয়ে হাঁটছে। আজ ফুল ফোটার দিন। লিপির বিয়ে হয়ে যাচ্ছে। রফিকের ঘরে ফুটফুটে একটা রাজকন্যা এসেছে। পারুলের পেটে নতুন মানুষ, পৃথিবীতে আসার অপেক্ষা করছে। মোশারফ পারুলকে সঙ্গে করে ভিন দেশে সংসারের ছবি আঁকছে। ছায়াকুটির বাড়িও আকাশ ছোঁয়ার স্বপ্ন দেখে জেগে উঠেছে। সবচেয়ে বড় খবর হলো, রঞ্জু বিসিএস পরীক্ষায় প্রথম হয়েছে। এদিকে রিয়া নীল শাড়ি পরেছে। চোখে কাজল দিয়েছে। এতে চোখ দুটি আরও টানা টানা লাগছে। তার হাতে একগুচ্ছ লাল গোলাপ। শরীর থেকে মিষ্টি একটা গন্ধ ভেসে আসছে। রিয়া কার জন্য অপেক্ষা করছে? বাবার মৃত্যুর পর রঞ্জু কি পারবে ছায়াকুটির বাড়ির হাল ধরতে?

একরাত্রি

তাবারক হোসেন
  • ৳৬০

রাত গভীর হয়েছে। নীলুর থাকার ঘরের জানালা দিয়ে চাঁদের আলো বিছানার ওপর আছড়ে পড়েছে। সঙ্গে মৃদুমন্দ বাতাসের হালকা পরশ। বিদ্যুৎ চলে যাওয়ার ফলে তাহসান সৃষ্টিকর্তার এই দানটুকু নয়নভরে দেখতে পেল। এমন সময় নীলু জ্বলন্ত মোমবাতি হাতে নিয়ে রুমে ঢুকল। এখন জোছনার আলোয় প্রদীপের মতো নিবু নিবু মোমবাতির আলো নিতান্তই ম্লান হয়ে গেল। জোছনার আলোর সঙ্গে তাহসান তার মনের আলো মিশিয়ে স্পষ্ট দেখতে পাচ্ছে, নীলু প্রতিমার মতো গভীর মায়াভরা কালো চোখে তার দিকে চেয়ে আছে। হাসনাহেনার পাগল করা সুবাস আবার বইতে শুরু করেছে। জোছনার আলো, হেনা ফুলের সুবাস আর নীলুর মায়াভরা মুখখানি একসঙ্গে মিশে গিয়ে এই নির্জন কক্ষটি আজ যেন স্বপ্নরাজ্যেরই একটুকরা অংশ হয়ে গেল। তাহসান মনে মনে ভাবে, এই মধুময় পরিবেশে নীলুর মতো একজন মানবীর সঙ্গে একই কক্ষে হাজার বছর কাটিয়ে দেওয়া যায়। কে জানে কিসের টানে, কিসের মোহে দুটি প্রাণ আজ এত পাশাপাশি, কাছাকাছি চলে এসেছে! তাহসানের রঙিন ভাবনা বেশিক্ষণ স্থায়ী হলো না। কোত্থেকে যেন দমকা হাওয়ায় ভেসে একখণ্ড চাপা কষ্ট এসে তার মনটাকে উদাস করে দিল। বারবার তাহসানের মনে হলো, এখানে সে এক রাতের অতিথি ছাড়া আর কিছুই না।

পরানে বাজে বাঁশি

শহিদ হোসেন খোকন
  • ৳৫০

একজন বৃদ্ধ পত্রিকার শোক সংবাদের পাতায় হারিয়ে যাওয়া পরিচিতজনদের খুঁজতে থাকেন এবং একদিন সেই শোক সংবাদের পাতায় তার ছবিও দেখতে পান মোতাহার। আবার অফিসের প্রয়োজনীয় মোতাহার, সময়ের ব্যবধানে কেমন করে অপ্রয়োজনীয় হয়ে যায় ‘হোমলেস’ গল্পে লেখক সেটি দেখিয়েছেন। ‘ভিক্ষুক সমাচার’ গল্পে এক সময়ের মেধাবী ছাত্র হাসানের ভিক্ষুকদের নিয়ে গবেষণায় উঠে এসেছে ভিক্ষা-বাণিজ্যের আড়ালে থাকা অনেক তথ্য। হোক গল্প কিন্তু তা যেন চলমান সময়ের রাজনীতি- অর্থনীতি ও অপরাধ জগতের একটা ছবি। বইয়ের নাম গল্প ‘পরাণে বাজে বাঁশি’তে কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদকে উপস্থিত করে একটি দম্পতির দীর্ঘ দিনের দূরত্বকে আবিষ্কার করেছেন লেখক। গ্রন্থে সংকলিত অন্য গল্পগুলো হলো- জুলেখার জবানবন্দি, চম্পার মায়ের ডায়েরি, মাথামোটা এজাজ, সুখ-দুঃখের গল্প।

একদিন কপোতাক্ষ ও অন্যান্য গল্প

রেজা নুর
  • ৳৪০

যেদিন প্রথম সূর্য উঠল, সেদিন থেকেই গল্পের শুরু। সূর্য, চাঁদ আর তারার আলোর সঙ্গে সঙ্গে আভাময় হয়ে উঠল গুচ্ছ গুচ্ছ কাহিনী। অনেক কিছুই তো ঘটে যায়। সময় গড়ায়। কোনো না কোনো দিক দিয়ে সেগুলোও গল্প। ছাঁচে ফেলে পরম্পরা জুড়ে দিলে হয়ে ওঠে গল্পসম্ভার। রেজা নুরের ‘ একদিন কপোতাক্ষ ও অন্যান্য গল্প’ বইয়ের শরীর এমন সময়ের পথ ধরেই এগিয়েছে। এতে রয়েছে স্মৃতি, আশা-আকাঙ্ক্ষা, প্রেম, জীবনবোধ, যৌনতা, হাসি-কান্নার সুন্দর উপস্থাপন। প্রতিটি গল্পের শরীর যেন আলাদা আলাদা অবয়বে বেড়ে উঠেছে। এ গ্রন্থে সংকলিত হয়েছে মোট ১৭ টি গল্প। গল্পগুলোতে আঞ্চলিক শব্দের ব্যবহার গল্পের ভাষাকে আরো হৃদয়গ্রাহী করে তুলেছে।

জালবন্দি জীবন

লুৎফুন্নাহার পিকি
  • ৳৯০

উচ্চ শিক্ষার্থে বিদেশে গিয়ে রোহেনের পরিচয় হয় বাংলাদেশি তরুণী টিয়ারা আর চীনা তরুণী লি’র সঙ্গে। রোহেনের বন্ধু রিশানের সাথেও এই দুই তরুণীর বন্ধুত্ব হয়। সাধারণ মধ্যবিত্ত পরিবারের ছেলে রোহেন। অর্থনৈতিক আর সামাজিক অবস্থানের মাপকাঠিতে টিয়ারা আর রিশানের সাথে ওর অনেক ব্যবধান। কৃষ্টি আর সংস্কৃতির দিক থেকে ততোধিক ভিন্ন অবস্থানে লি। ভিন্ন ভাষাভাষী, ভিন্ন কৃষ্টি আর ভিন্ন ভিন্ন আর্থসামাজিক অবস্থানের এইসব তরুণ-তরুণীর বন্ধুত্ব, প্রেম আর ভালোবাসার গল্প নিয়ে রচিত হয়েছে ‘জালবন্দি জীবন’। অত্যন্ত মেধাবি, বন্ধু-স্বজনদের প্রিয়মুখ রোহেনের স্বপ্নগুলো কঠিন বাস্তবের নির্মম অভিঘাতে একের পর এক খাবি খেতে থাকে। উচ্চ শিক্ষার স্বপ্ন দেখা এই তরুণটি এবং তার বন্ধুরা এক সময় জড়িয়ে পড়ে জীবনের জালে। নির্মোহ বাস্তব আর মোহময়ী স্বপ্ন-এ দুইয়ের দোলাচলে কখনো স্বপ্নপূরণ, কখনোবা স্বপ্নভঙ্গ কিংবা নতুন স্বপ্নের হাতছানি। পথ চলতে গিয়ে রোহেন অনুভব করে জীবন যেমন অঞ্জলিভরে দেয়, তেমনি কেড়েও নেয় অনেক কিছু। তবুও কোন সে জালে যা মানুষকে জড়িয়ে নেয়? যার টানে মানুষ ছুটে বেড়ায় এক বুক আকুতি নিয়ে?

Items Showing 1 to 24 from 32 books results

Boighor

Stay Connected